গল্পেরঝুড়ির এ্যাপ ডাউনলোড করুন - get google app
গল্পেরঝুড়ি ফানবক্স ! এখন গল্পের সাথেও মজাও হবে! কুইজ খেলুন , অংক কষুন , বাড়িয়ে নিন আপনার দক্ষতা জিতে নিন রেওয়ার্ড !
জিজে রাইটারদের জন্য সুঃখবর ! এবারের বই মেলায় আমরা জিজের গল্পের বই বের করতেছি ! আর সেই বইয়ে থাকবে আপনাদের লেখা দেওয়ার সুযোগ! থাকবে লেখক লিস্টে নামও ! খুব তারাতারি আমাদের লেখা নির্বাচন কার্যক্রম শুরু হবে

গল্পেরঝুড়িতে স্বাগতম ...

আপনাদের মতামত জানাতে আমাদের সাপোর্টে মেসেজ দিতে পারেন অথবা ফেসবুক পেজে মেসেজ দিতে পারেন , ধন্যবাদ

আমার দিন

"ছোটদের গল্প" বিভাগে গল্পটি দিয়েছেন গল্পের ঝুরিয়ান সানজিদা আক্তার প্রিয়া (০ পয়েন্ট)



আমি আজ ভীষণ ব্যস্ত । অনেক কাজ আমার মাথার উপরে । সবার আগে মুখ ধোঁয়া , তারপর চুল আঁচড়ানো, তৈরি হয়ে বাইরে যাব । না না ভুল হয়ে---ছে। আমি তো বাইরে যাব না । আসলে রেডি হয়ে সবাই তো বাইরে যায় । কিন্তু আমার অগোছালো থাকতে একদম ভাল লাগে না, তাই আমি আমাকে ঠিকঠাক করে নি । কিন্তু এটার মানে এটা না আমি বেঠিক । আঃ আঃ আমি তো ভুলেই গেছি আমার মোবাইল আমাকে মিস করছে। কই গেল, কই গেল মোবাইল, তুমি কই? এইতো । স--রি দেরি হয়ে গেছে । আমি এসেছি এখন আমি মোবাইল টিপবো । তারপর আমার কাজ শেষ । পেটের ভিতর কি দৌড়াচ্ছে । আ-ম্মু আমাকে কিছু দেও । কিচ্ছু খামু । আম্মু আমায় খেতে দিল , খাওয়া শেষে আমি স্কুলে যাব । আমি স্কুল থেকে লাফিয়ে লাফিয়ে আসছিলাম । হুম- কে আম্মু , আম্মু বাগানে কি করছে । অ্যা আম্মু আমার গুপ্তধনের জায়গাটা খুড়ছে কেন? কি করবো, কি করবো ,ভাবতে ভাবতে আমি আমার তিনটে নোখ খেয়ে ফেলি,খ্যা। আম্মু আমার গুপ্তধনের বক্সটি পেয়ে হাতে নিল। আমি দৌড়ে গিয়ে আম্মুর হাত থেকে বক্সটি কেড়ে নিলাম । এটা -- এটা কিচ্ছুনা এটা আমার । এরপর আমি দৌড়ে রুমে যাওয়ার সময় শয়তানটার সাথে ধাক্কা খেয়ে আমার বক্সটি পড়ে গেল। শয়তান বলতে আমার নাদুসনুদুস ভাইটাকেই বুঝিয়েছি। আম্মু বলে আমার অর্ধেক শরীর আমার ভাইই পেয়েছে তাই আমি এমন হয়েছি। আর তাই আম্মু আমাকেই অনেক আদর করে। করবেই তো আমি এত কিউউট। ওই যে ধাক্কা খেয়েছিলাম ,আমি এখন কাদঁছি । আ আ আ আ আ আ । আমি কিন্তু গান গাচ্ছি না আমি কাদঁছি । এখন আমার আব্বুর ভূমিকা । আমার আব্বু আমাকে অনেক ভালোবাসে । আব্বু দৌঁড়ে এসে আমায় সহ আমার বক্সকে তুলে নিয়ে গেল। আমার রুমে নিয়ে এসে আব্বু আমায় অনেক আদর করে দিল । আমি বললাম আমার বক্সকেও একটু আদর করে দিতে । আব্বু আমার কথায় বক্সকেও একটু আদর করে দিল । আমি বসে বসে আমার বক্সটি গোপনে গোপনে খুললাম । যে যে সব ঠিক আছে নাকি , হিম আছে । কিচ্ছু টাকা আছে যা আমি জমিয়েছি। একটা খরগোশ আছে কাপড়ের ,ওটা আমার বেশ পছন্দের। আর আছে কিচ্ছু চুলের ক্লিপ , যা আব্বু আমায় জন্মদিনে দিয়েছিল ।এগুলো এতোও দামি না হলেও এখানে আমার ছোটো ছোটো অনেক স্মৃতি আছে। সেগুলো সব জড়িয়ে ধরে আমি ঘুমিয়ে গেলাম । এরপর আম্মু এসে আমায় দেখে গেল এবং আমার মতোই কিউট চাদরটা আমায় পরিয়ে দিয়ে চলে গেল। এভাবেই আমার দিনটা যায় যায় ।


এডিট ডিলিট প্রিন্ট করুন  অভিযোগ করুন     

গল্পটি পড়েছেন ২১৪ জন


এ জাতীয় গল্প

→ তোমার আমার গল্পটা এমন না হলেও পারতো
→ তোমার আমার গল্পটা এমন না হলেও পারতো
→ তোমার আমার গল্পটা এমন না হলেও পারতো
→ কলিজার বোন আমার
→ ২০১৮ থেকে ২০২১ পযন্ত আমার অবস্থা
→ গল্পের ঝুড়িতে ২০১৮ থেকে ২০২১ পর্যন্ত আমার অবস্থা
→ ঘুষ আমি খাই না ঘুষেই আমারে খায়।
→ প্রতিদিন ১ কেজি কাদা না খেলে ঘুম আসে না ১০০ বছর বয়সী এই বৃদ্ধের!
→ আজ এক মুরব্বির মুখে শোনা একটা কথা সারাদিন মনে পড়ল!!!
→ একটি দিন ও গুটিকয়েক নাবলাবাণী

গল্পটির রেটিং দিনঃ-

গল্পটির বিষয়ে মন্তব্য করুন

গল্পটির বিষয়ে মন্তব্য করতে আপনার একাউন্টে প্রবেশ করুন ... ধন্যবাদ...