গল্পেরঝুড়ির এ্যাপ ডাউনলোড করুন - get google app
গল্পেরঝুড়ি ফানবক্স ! এখন গল্পের সাথেও মজাও হবে! কুইজ খেলুন , অংক কষুন , বাড়িয়ে নিন আপনার দক্ষতা জিতে নিন রেওয়ার্ড !
জিজে রাইটারদের জন্য সুঃখবর ! এবারের বই মেলায় আমরা জিজের গল্পের বই বের করতেছি ! আর সেই বইয়ে থাকবে আপনাদের লেখা দেওয়ার সুযোগ! থাকবে লেখক লিস্টে নামও ! খুব তারাতারি আমাদের লেখা নির্বাচন কার্যক্রম শুরু হবে

সুপ্রিয় গল্পেরঝুরিয়ান... জিজেতে আজে বাজে কমেন্ট করা থেকে বিরত থাকুন ... অন্যথায় আপনার আইডি বা কমেন্ট ব্লক করা হবে... আর গল্প দেওয়ার ক্ষেত্রে গল্প দেওয়ার নিয়ম মেনে চলুন ... সার্বিকভাবে জিজের নীতিমালা মেনে চলার চেস্টা করুন ...

সুপ্রিয় গল্পেরঝুরিয়ান... জিজেতে আজে বাজে কমেন্ট করা থেকে বিরত থাকুন ... অন্যথায় আপনার আইডি বা কমেন্ট ব্লক করা হবে... আর গল্প দেওয়ার ক্ষেত্রে গল্প দেওয়ার নিয়ম মেনে চলুন ... সার্বিকভাবে জিজের নীতিমালা মেনে চলার চেস্টা করুন ...

ভার্চুয়াল গার্লফ্রেন্ড

"রোম্যান্টিক" বিভাগে গল্পটি দিয়েছেন গল্পের ঝুরিয়ান Sayemus Suhan (০ পয়েন্ট)



- 'মিস্টার নিশ্চুপ বালক, আপনি এত্তগুলা পঁচা.. আপনি খুব বাজে একটা ছেলে !!' . টিউশনী থেকে ফিরছি আধা ঘন্টা খানেক আগে । নিজের প্রিয় বিছানায় বসে ল্যাপটপে 'ICC WC 2k15' গেমটা চালু করে ভার্চুয়াল ক্রিকেট খেলার মজা নিচ্ছি । হঠাত্ ফেসবুকের মেসেঞ্জারের টোনটা বেজে উঠল । গেমটা মিনিমাইজ করে মেসেজ উইন্ডোটা অপেন করতেই দেখি এই অদ্ভূত মেসেজটা । নাম দেখে মনে হচ্ছে সম্ভবত কোনো মেয়ের আইডি । অপরিচিত একটা মেয়ের আইডি থেকে মেসেজ দেখে যতটা না অবাক হয়েছি তার থেকে বেশী অবাক করা মেয়েটার কথাগুলো । কিছুক্ষণ বোকার মতো চেয়ে রইলাম মেসেজটার দিকে । . কিরে বাবা ? আমি আবার কী করলাম ? নিজের অবসর সময় কাটানোর জন্যই মূলত ফেসবুকে আসি । পরিচিত কিছু মানুষ ছাড়া অন্য কারও সাথে খুব বেশী চ্যাট হয় না বললেই চলে । অল্পসল্প গল্প লেখার চেষ্টা করি । পাশাপাশি কিছু অনলাইন রাইটারের লেখা একটু আধটু পড়ি । . মেয়েটাকে রিপ্লাইকে লিখলাম - আমি আবার কী করলাম ? - আপনি খুব খারাপ একটা ছেলে । আপনি আমাকে খুব কষ্ট দিছেন । . মেয়েটার কথা শুনে অবাক না হয়ে পারলাম না । মেয়েটার ফেসবুক নাম 'অভিমানী পরী' । মেয়েটার প্রোফাইলে গিয়ে প্রথমেই আমার চোখের দৃষ্টি নিবদ্ধ হল প্রোফাইল পিকচারটা দেখে । নীল সালোয়ার কামিজের সাথে হাত ভর্তি রঙ বেরঙের চুড়ি আর চোখে হালকা কাজল আর ঠোঁটে হালকা লিপস্টিকে মেয়েটাকে রোমান্টিক রাইটারদের গল্পের নায়িকাদের মতো লাগছে । মেয়েটার এই পিকচারটা দেখে কোনো ছেলে যে চোখ বন্ধ করে প্রেমে পড়ে যেতে পারে সেটা নিয়ে আমার কোনো সন্দেহ নেই । প্রোফাইলে দেখলাম বেশ কিছু কবিতা লেখা । বেশ সুন্দর কবিতা । তবে একটা পোস্ট দেখে আমি রীতিমতো ভিমড়ি খাওয়ার উপক্রম । পোস্টটা এরূপ - . " নিশ্চুপ বালক, একজন অনলাইন রাইটার, হুম আপনাকেই বলছি আপনি খুবই বাজে । আপনি আমাকে অনেক কষ্ট দিছেন । আপনি খুবইইই পঁচা, পঁচা, পঁচা, আপনি এতগুলা পঁচা !" . আমি সত্যি অবাক না হয়ে পারলাম না । এই মেয়েটার মাথায় নিশ্চয় কোনো সমস্যা আছে । আমার অবাক হওয়ার মাত্রাটা আরও বেড়ে গেল মেয়েটার পোস্টে কিছু লুল পাবলিকের কমেন্ট দেখে । . একজন লিখছে - "নিশ্চুপ বালক ছেলেটা ফাজিলের ফাজিল । থাপড়িয়ে ওর সবগুলো দাঁত ফেলে দেওয়া উচিত । ও তোমাকে কষ্ট দেয় ।" আরেকজন লিখছে - "ফাজিলের আইডি লিংকটা দাও তো এখুনি রিপোর্ট করব ।" অন্যজন লিখছে - "এই ছেলেটাকে আমি চিনি । ও আজাইরা গল্প লিখে মানুষকে বিভ্রান্ত করে ।" . কেউ কেউ তো কমেন্টে আমারে তথাকথিত নোংরা ভাষায় গালিগালাজ করেছে । কিন্তু আমি করলাম টা কি সেটাই তো আমি জানি না । . মেয়েটাকে এবার আমি নিজেই নক দিলাম, -আমি কি করলাম বলবেন ? -আপনি জানেন না কি করেছেন?? - বিলিভ মি, আই রিয়েলি ডোন্ট নো । -আপনি নিজেকে খুব বড় রাইটার ভাবেন, তাই না ? -তা কেন হবে ? আমি যা লিখি প্রায় সবই আনাড়ি । তাছাড়া আমি কি কখনও এমন আচরন করেছি ? -হুম করেছেন তো । -কীভাবে ? -আপনি জানেন না কেউ কমেন্ট করলে কমেন্টের রিপ্লে দিতে হয় ! -হুম । আমি তো দেই রিপ্লে । -তাহলে সেদিন আমি আপনার দুইটা লেখায় কত্ত সুন্দর কমেন্ট করলাম কিন্তু এখনো আমার কমন্টের রিপ্লে কেন দেন নি ? আপনি আমাকে ইগনোর করেছেন ! . ও মাই গড!! ব্যাপারটা তাহলে এই কমেন্টের রিপ্লে না দেওয়া । এই সামান্য বেপারে এতো কিছু ! মেয়েগুলা আসলে পারেও বটে । আমি অনেক কষ্টে খুঁজে বের করে দেখলাম আমার মাস ছয়েক আগের দুইটা গল্পে মেয়েটা কমেন্ট করছে । দেখলাম বেশ সুন্দর কমেন্টই করেছে অভিমানী পরী । এমন কমেন্টের রিপ্লে না দেওয়াটা সত্যি অন্যায় হয়ে গেছে । তাড়াতাড়ি উত্তর দিলাম । তারপর থেকে অভিমানী পরীর সাথে আমার খুব ভালো ভার্চুয়াল ফ্রেন্ডশীপ হয়ে গেলো । কিছুদিন পর জানতে পারলাম ওর নাম অতসী । ভিএনএসে ইন্টার সেকেন্ড ইয়ারে পড়ে । . বেশ কিছুদিন পরে মেয়েটা নিজে থেকেই ইনবক্সে নক দিল - -আচ্ছা লেখক সাহেব, আপনার নাম নিশ্চুপ বালক কেন ? - আমি সবসময় নিশ্চুপ থাকি তাই । - আর আপনার রিয়েল নাম তো একুশ । এই নামটা এমন অদ্ভূত কেন ? - আমার বার্থডে একুশ তারিখে তো তাই । - আমার কিন্তু তা মনে হয় । - কী মনে হয় ? - আপনি মানুষটাই অদ্ভূত তাই আপনার নামটাও এমন অদ্ভূত । হিহিহিহি । ... ... ... তারপর ঠিক যে কী হলো...আর মনে নেই । শুধু মনে আছে.. এই নিশ্চুপ ছেলেটা আর নিশ্চুপ থাকে না !! প্রতিনিয়ত তাকে তার অভিমানী পরীর মিষ্টি অভিমান গুলো ভাঙ্গাতে ব্যস্ত থাকতে হয় মোবাইল ফোনের এই পাশটাতে !!


এডিট ডিলিট প্রিন্ট করুন  অভিযোগ করুন     

গল্পটি পড়েছেন ২৪৩ জন


এ জাতীয় গল্প

→ আইজ আমার গার্লফ্রেন্ডের বিয়া
→ গল্প_এক্স_গার্লফ্রেন্ড_যখন_বেয়াইন
→ মফিজের গার্লফ্রেন্ড বিষর্জন
→ বকুলের গার্লফ্রেন্ড এর বিয়া পর্ব-১
→ বোকা গার্লফ্রেন্ড
→ পেটুক গার্লফ্রেন্ড
→ গার্লফ্রেন্ডের প্যারা
→ যখন গার্লফ্রেন্ডেরর বিয়ে হয়
→ গার্লফ্রেন্ড বউ
→ "ভাইয়ার গার্লফ্রেন্ড"

গল্পটির রেটিং দিনঃ-

গল্পটির বিষয়ে মন্তব্য করুন

গল্পটির বিষয়ে মন্তব্য করতে আপনার একাউন্টে প্রবেশ করুন ... ধন্যবাদ...