বাংলা গল্প পড়ার অন্যতম ওয়েবসাইট - গল্প পড়ুন এবং গল্প বলুন

বিশেষ নোটিশঃ সুপ্রিয় গল্পেরঝুরিয়ান - আপনারা যে গল্প সাবমিট করবেন সেই গল্পের প্রথম লাইনে অবশ্যাই গল্পের আসল লেখকের নাম লেখা থাকতে হবে যেমন ~ লেখকের নামঃ আরিফ আজাদ , প্রথম লাইনে রাইটারের নাম না থাকলে গল্প পাবলিশ করা হবেনা

আপনাদের মতামত জানাতে আমাদের সাপোর্টে মেসেজ দিতে পারেন অথবা ফেসবুক পেজে মেসেজ দিতে পারেন , ধন্যবাদ

নীল দ্বীপ (পর্ব ২)

"উপন্যাস" বিভাগে গল্পটি দিয়েছেন গল্পের ঝুরিয়ান ESHRAT JAHAN (১১৭ পয়েন্ট)



X ব্রেকফাস্ট শেষে মৃন্ময় তার রুমে গেল।একটু পরে হৃদি মৃন্ময়ের রুমে ঢুকলো।বিছানায় বসে বললো"ফুফু তোর জন্য ছেলে দেখছে।এই যে ওই ছেলের ছবি।আজকে তোকে দেখতে আসবে।" মৃন্ময় হৃদির দিকে বিস্ময়ের চোখে তাকিয়ে বলল,"আজকেই আসবে!" "হ্যা আজকে আসবে।ছেলেটা নাকি ভালো।" মৃন্ময়ের মুখে হতাশার ছাপ দেখা গেল।একটু পরে হৃদি বলে উঠলো,"দেখ মৃন্ময় সাদিক ভাইয়ার কিন্তু খোঁজ নাই।সে বেঁচে আছে নাকি মরে গেসে নাকি বিয়ে টিয়ে করছে কিছুই খোঁজ নাই।কি করে বুঝবি সে তোকে ভালোবাসে।আচ্ছা তুই দেখ ছেলেটা পছন্দ হয় নাকি।তারপর একটু মিশে দেখ ভালো লাগে কিনা।" মৃন্ময় আস্তে করে বললো," ঠিক আছে।" বিকেলে মৃণ্ময়কে দেখতে এলো।পাত্র দেখাশুনা সব দিক দিয়ে ভালো।তারপরেও মৃন্ময়ের মন টানছিল না এই ছেলের দিকে।পাত্র পক্ষ চলে যাবার পর মৃন্ময় বারান্দায় গিয়ে বসল।হৃদিও তার পাশে যেয়ে বসলো। হৃদি বললো,"দেখ মৃন্ময় আর মন খারাপ করে থাকিস না।জীবন কারো জন্য থেমে থাকে না।আচ্ছা তোর যে এই ছেলেকেই বিয়ে করতে তা না।তুই একটু মিশে দেখ কেমন।" "ঠিক আছে।" "শোন এই ছেলেকে তোর ফোন নাম্বার দিয়েছি।যেকোনো মহুর্তে কল দিতে পারে।" মৃন্ময় হৃদির দিকে তাকিয়ে বললো,কি?" "আরে হ্যা।" "আচ্ছা রং নাম্বারে কল আসলে ধরবো।" আয়মান ক্লান্ত মন নিয়ে বারান্দায় বসে আছে।কোনো জব পাচ্ছে না।এই দিকে হৃদির কথাও ভাবছে।কি করবে বুঝতে পারছে না।কবে যে একটা জব হবে।আয়মানের মুড অফ দেখে কবির পাশে এসে বসলো।কবির আয়ামানের দিকে তাকিয়ে বললো,"কিরে মুড নাকি।" আয়মান কিছু বললো না।কবির আয়মানের গায়ে হাত দিয়ে বললো,"কি হয়েছে রে বল।" "জব পাচ্ছি না।কি যে করি?ঐদিকে হৃদির জন্য ছেলে দেখা শুরু করছে।" "দেখ একটু চেষ্টা কর।ভালো কিছু পাবি।" "চেষ্টা তো করছি রে।" "আর আল্লাহর ওপর ভরসা কর পেয়ে যাবি।তোর জবও পেয়ে যাবি আবার তোর ভালোবাসার মানুষকেও পেয়ে যাবি।" আয়মান কিছু বললো না ।চুপচাপ বসে আছে। রাতে মৃন্ময় আর হৃদি ছাদে গেল।এই সময় মৃন্ময়ের ফোনে রং নাম্বারে কল আসলো।ফোনের দিকে তাকিয়ে বলল,"দেখ রং নাম্বারে কল এসেছে।" "আরে ধর দেখ কি ছেলে নাকি।" "আচ্ছা।" মৃন্ময় কল ধরে বললো,"হ্যা কে বলছেন?" "মৃন্ময় আমাকে চিনতে পেরেছো?" "জ্বি না চিনিনি।বলেন তো কে আপনি?" "আমি শুভ্র।" মৃন্ময় ইশারায় হৃদিকে বলল শুভ্র কে।হৃদি জানিয়ে দিল ওই ছেলে যে আজকে দেখতে এসেছিল।বেশি আগ্রহ নেই বলে নামও জানতে চায়নি মৃন্ময়। "মৃন্ময় তুমি কি আমার কথা শুনতে পাচ্ছ?" "ওহ আপনি তাহলে।" "হ্যা আমি।কেমন আছো?" "এইতো ভালো।" "আচ্ছা আমরা কি কাল দেখা করতে পারি?" "দেখা!" "হ্যা দেখা করতে পারি।" হৃদি ইশারায় বললো কর দেখা। মৃন্ময় বললো,"আচ্ছা কালকে বিকেলে দেখা করবো।" "ঠিক আছে।"


এডিট ডিলিট প্রিন্ট করুন  অভিযোগ করুন     

গল্পটি পড়েছেন ২১ জন


এ জাতীয় গল্প

→ নীল দ্বীপ(পর্ব১)
→ খরগোশের দ্বীপ
→ স্বপ্নদ্বীপে ভ্রমণ
→ নীল সাগরের দেশ মালদ্বীপে জিজেসগণ।পর্বঃ(০৪)
→ নীল সাগরের দেশ মালদ্বীপে জিজেসগণ।(শেষ পর্ব)
→ নীল সাগরের দেশ মালদ্বীপে জিজেসগণ। পর্ব(০৩)
→ রহস্যে ঘেরা বাল্ট্রা দ্বীপ
→ নীল সাগরের দেশ মালদ্বীপে জিজেসগণ।পর্বঃ(০২)
→ জিজেসরা যখন নীল সাগরের দেশ মালদ্বীপে।(পর্ব ০১)
→ নির্জন দ্বীপ থেকে…
→ নিঝুম দ্বীপের সেই ছেলেটি_লেখকঃ ইমদাদুল হক মিলন
→ অজানা দ্বীপ
→ বোভেট দ্বীপ রহস্য ঘেরা
→ কোকোস দ্বীপ।

গল্পটির রেটিং দিনঃ-

গল্পটির বিষয়ে মন্তব্য করুন

গল্পটির বিষয়ে মন্তব্য করতে আপনার একাউন্টে প্রবেশ করুন ... ধন্যবাদ...