গল্পেরঝুড়ির এ্যাপ ডাউনলোড করুন - get google app
গল্পেরঝুড়ি ফানবক্স ! এখন গল্পের সাথেও মজাও হবে! কুইজ খেলুন , অংক কষুন , বাড়িয়ে নিন আপনার দক্ষতা জিতে নিন রেওয়ার্ড !

সুপ্রিয় গল্পের ঝুরিয়ান ... গল্পেরঝুড়ি একটি অনলাইন ভিত্তিক গল্প পড়ার সাইট হলেও বাস্তবে বই কিনে পড়ার ব্যাপারে উৎসাহ প্রদান করে... স্বয়ং জিজের স্বপ্নদ্রষ্টার নিজের বড় একটি লাইব্রেরী আছে... তাই জিজেতে নতুন ক্যাটেগরি খোলা হয়েছে বুক রিভিউ নামে ... এখানে আপনারা নতুন বই এর রিভিও দিয়ে বই প্রেমিক দের বই কিনতে উৎসাহিত করুন... ধন্যবাদ...

সুপ্রিয় গল্পেরঝুরিয়ান... জিজেতে আজে বাজে কমেন্ট করা থেকে বিরত থাকুন ... অন্যথায় আপনার আইডি বা কমেন্ট ব্লক করা হবে... আর গল্প দেওয়ার ক্ষেত্রে গল্প দেওয়ার নিয়ম মেনে চলুন ... সার্বিকভাবে জিজের নীতিমালা মেনে চলার চেস্টা করুন ...

পার্সি জ্যাকসন অ্যান্ড দ্য লাইটিনিং থিফ

"ফ্যান্টাসি" বিভাগে গল্পটি দিয়েছেন গল্পের ঝুরিয়ান শিমুল (১৪৫৯ পয়েন্ট)



এই গল্প টি গ্রীক পুরাণের কাহিনী অনুসারে রচিত। গ্রীক ধর্মে প্রধান তিন দেবতা ছিল।তাদের নাম যথাক্রমে ১,জিউস ২,পসাইডন ৩,হেডিস।তারা পৃথিবীতে মানুষ রুপে আসে এবং কিছু সুন্দরী মহিলাদের সাথে সম্পর্ক গড়ে তোলে।এই সম্পর্কের কারনে তাদের সন্তান হয়।সেই সন্তান গুলোকে ডেমিগড বলা হয়।অর্থাৎ অর্ধেক দেবতা আর অর্ধেক মানুষ।এর মধ্যে পার্সি পসাইডন অর্থাৎ সমুদ্র দেবতার ছেলে।পার্সি এই সব বিষয়ে কিছুই জানতনা তার মা তার কাছ থেকে সবকিছু লুকিয়ে রেখেছিল।কারন কিছু রাক্ষস মনে করে তার কাছে আছে জিউসের লাইটিনিং বোল্ড।লাইটিনিং বোল্ড হলো পৃথিবীর সবচেয়ে শক্তিশালী অস্ত্র।যা ছিল প্রধান দেবতা জিউসের কাছে। তার মা তাই তাকে আগলে রেখেছিল।এরপর সে একদিন স্কুলে যাই এবং তার একটা মেডাম ছিল একটি রাক্ষসী। (চলবে)


এডিট ডিলিট প্রিন্ট করুন  অভিযোগ করুন     

গল্পটি পড়েছেন ২৫৯ জন


এ জাতীয় গল্প

→ ~অশনি সংকেত-বিভূতিভূষণ বন্দ্যেপাধ্যায়(বুক রিভিউ)
→ ~আরণ্যক-বিভূতিভূষণ বন্দ্যেপাধ্যায়(বুক রিভিউ)
→ ~পুতুল নাচের ইতিকথা-মানিক বন্দ্যেপাধ্যায়(বুক রিভিউ)
→ ~আদর্শ হিন্দু হোটেল-বিভূতিভূষণ বন্দ্যেপাধ্যায়(বুক রিভিউ)
→ ~শ্রেষ্ঠ গল্প-গী দ্য মোপাসাঁ।
→ ♥নেকলেস♥আমার প্রিয় একটি গদ্য
→ দ্যা টেমপেস্ট
→ রকেটবিদ্যা
→ হ্যারি পটার আন্ড দ্য অর্ডার অব দ্য ফিনিক্স
→ বিদ্যানন্দ ফাউন্ডেশনঃ মুসলমানের টাকা হজম

গল্পটির রেটিং দিনঃ-

গল্পটির বিষয়ে মন্তব্য করুন

গল্পটির বিষয়ে মন্তব্য করতে আপনার একাউন্টে প্রবেশ করুন ... ধন্যবাদ...