গল্পেরঝুড়ির এ্যাপ ডাউনলোড করুন - get google app

যারা একটি গল্পে অযাচিত কমেন্ট করছেন তারা অবস্যাই আমাদের দৃষ্টিতে আছেন ... পয়েন্ট বাড়াতে শুধু শুধু কমেন্ট করবেন না ... অনেকে হয়ত ভুলে গিয়েছেন পয়েন্ট এর পাশাপাশি ডিমেরিট পয়েন্ট নামক একটা বিষয় ও রয়েছে ... একটি ডিমেরিট পয়েন্ট হলে তার পয়েন্টের ২৫% নষ্ট হয়ে যাবে এবং তারপর ৫০% ৭৫% কেটে নেওয়া হবে... তাই শুধু শুধু একই কমেন্ট বারবার করবেন না... ধন্যবাদ...

সুপ্রিয় গল্পেরঝুরিয়ান... জিজেতে আজে বাজে কমেন্ট করা থেকে বিরত থাকুন ... অন্যথায় আপনার আইডি বা কমেন্ট ব্লক করা হবে... আর গল্প দেওয়ার ক্ষেত্রে গল্প দেওয়ার নিয়ম মেনে চলুন ... সার্বিকভাবে জিজের নীতিমালা মেনে চলার চেস্টা করুন ...

আমি শিয়া নাকি সুন্নি???

"ইসলামিক" বিভাগে গল্পটি দিয়েছেন গল্পের ঝুরিয়ান M.H.H.RONI (৪১৮ পয়েন্ট)



কাফেরদের এখন আমি আর কোন দোষ দেই না। তাদের ধর্মই এটা সবসময় মুসলীমদের উপর অত্যাচার আর নির্যাতন করবেই।আজকে আমাদের এতো অধঃপতনের কারন আমরা নিজেরাই। আজকে আমি বিচার করি কে শিয়া আর কে সুন্নি। আচ্ছা একজন শিয়া হলেই তার ধর্ম কী আলাদা? তার প্রভু কী আলাদা? তার নবীকি আলাদা? তাহলে এই বিভেদ কেন? অতছ চিৎকার করে বলি দুনিয়ার মুসলীম এক হও।এটা কোন কথা হলো। দুনিয়ার মুসলীম এক হবে কিভাবে? যখন আমরাই তাদের ধূরে সড়িয়ে দিচ্ছি। যেমন আপনি ধরুন:: মসজিদে নামায পড়ার সময় এক বাচ্চা পিছনে দাড়িয়ে হাসছে আর নামায পড়ছে। নামায শেষে ইমাম সাহেব বাচ্চাটির কাছে এসেই লাগাল এক চড় আর বলল বেয়াদপ মসজিদে এসে হাসছিস আরেকদিন যদি দেখি তকে মসজিদে খবর আছে। এখন বলুন ছোট ঐ বাচ্চা কী আরও মসজিদে আসবে? আবার পরেরদিন ইমাম সাহেব ঐ বাচ্চাকে গিয়ে বলল বাবা মসজিদে যাবে এই বয়স থেকেই তো অভ্যাস করতে হবে। বলুন ঐ বাচ্চা কী আরও মসজিদে যাবে?? কারন সে ভয় পেয়ে গেছে চড় খেয়ে। অতছ সেদিন যদি ইমাম সাহেব চড় না দিয়ে বুঝিয়ে বলত দেখ এটা হাসার জায়গা নয় ইবাদাত করার জায়গা আর হাসবে না কেমন? তাহলে ঐ বাচ্চা কিন্তুু মসজিদেও যেত আর হাসতোও না। ঠিক তেমনি আমরা মুখে বলছি দুনিয়ার মুসলীম এক হও। অতছ আমরা শিয়া, সুন্নি ভিবেদে কালবিলম্ব করি না। তাদের দূরে সড়িয়ে রাখি। এটা সত্যি কিছু শিয়াদের মধ্যে কুফুরি মতবাদ বিদ্যমান।তারা কী করবে? পূর্বপূরুষ থেকে এটা প্রাপ্য। যদি সারা বিশ্বে হাজার হাজার বিদর্মীরা তাদের নিজ ধর্ম ত্যাগ করে মুসলীম হতে পারে তাহলে তাদের বুঝ দেওয়ার মাধ্যমে তারা কেন কুফুরি মতবাদ ছাড়তে পারবে না? অতছ ঐটা না করে আমরা তাদের কাফের বলে আশপাশে আসতে দেই না। তাহলে কেমনে আমরা মুসলীম ঐক্যের কথা বলি? এটা শুধুই স্বপ্ন। এমন স্বপ্ন যা ছোট ছোট বাচ্চারা দেখে যার কোন ভিওি নেই। ডা. মাহতির মুহাম্মদ ঠিকই বলেছিলেন:: যখন ইউরোপিয়রা জ্ঞান- বিজ্ঞানে এগিয়ে যাচ্ছিল তখন আমরা কোন টুপি দেওয়া যায়েজ গোল টুপি নাকি লম্বা টুপি দেওয়া। এসব করেছি। এজ্যেই আমরা জ্ঞান-বিজ্ঞানে পিছিয়ে পরা জাতি। অথচ সকল জ্ঞান-বিজ্ঞানের সূচনাকারি মুসলীমরাই। ঠিক তেমনি যখন মুসলীমদের অস্তিত্ব বিলুপ্তির মুখে তখন আমরা একে অপরের ভুল ধরায় ব্যস্ত। আজকে বিদর্মিরা কী কে শিয়া আর কে সুন্নি এটা ভেবে নির্যাতন করছে? তাহলে ইরাকে তারা তো শিয়া তাদের উপর নির্যাতন হচ্ছে সেইসাথে সিরিয়া, ফিলিস্তিন,কাশ্মির,চীন,ভারত, মায়ানমার এসব মুসলীমরা তো সুন্নি তাহলে তাদের উপর কেন নির্যাতন করা হচ্ছে? যখন তারা দেখছে কে মুসলীম তাহলে আমরা কেন দেখছি কে সুন্নি আর কে শিয়া? যাইহোক মুসলীমদের জয় চিরন্তন। পৃথিবীর সমস্ত ভূমি মুসলীমদের জন্মভূমি। কবি আল্লামা ইকবাল যেমনটা বলেছেন:: আমরা তরবারির ছায়ায় বেড়ে উঠেছি। আমাদের ভয় কিংবা শত নির্যাতন করেও দমিয়ে রাখা যাবে না। ..................................সমাপ্ত..................... আমার দুটি লেখা আমার কাছে কেমন যেন অগুছালো লাগছে। আপনাদের কেমন লাগবে জানি না। যাইহোক ভুল ক্রটিসমূহ ক্ষমা করবেন।


এডিট ডিলিট প্রিন্ট করুন  অভিযোগ করুন     

গল্পটি পড়েছেন ৩৪৪ জন


এ জাতীয় গল্প

→ আমি (পর্ব৫)
→ আমি হিমু (২য় পর্ব)
→ পর্দা করা এত জরুরী কেন? ইসলামে পর্দা কি শুধু মহিলাদের জন্য নাকি পুরুষ-মহিলা উভয়ের জন্যে??
→ আমি হিমু (১ম পর্ব)
→ স্রষ্টাকে কে সৃষ্টি করল? বিভ্রান্তি নাকি সত্যি??
→ আমি এবং হুমায়ূন আহমেদ!!
→ আমি (পর্ব৪)
→ নাস্তিকতাঃ সমাধান নাকি সমস্যা??
→ আমি (পর্ব৩)

গল্পটির রেটিং দিনঃ-

গল্পটির বিষয়ে মন্তব্য করুন

গল্পটির বিষয়ে মন্তব্য করতে আপনার একাউন্টে প্রবেশ করুন ... ধন্যবাদ...