গল্পেরঝুড়ির এ্যাপ ডাউনলোড করুন - get google app
গল্পেরঝুড়ি ফানবক্স ! এখন গল্পের সাথেও মজাও হবে! কুইজ খেলুন , অংক কষুন , বাড়িয়ে নিন আপনার দক্ষতা জিতে নিন রেওয়ার্ড !

যারা একটি গল্পে অযাচিত কমেন্ট করছেন তারা অবস্যাই আমাদের দৃষ্টিতে আছেন ... পয়েন্ট বাড়াতে শুধু শুধু কমেন্ট করবেন না ... অনেকে হয়ত ভুলে গিয়েছেন পয়েন্ট এর পাশাপাশি ডিমেরিট পয়েন্ট নামক একটা বিষয় ও রয়েছে ... একটি ডিমেরিট পয়েন্ট হলে তার পয়েন্টের ২৫% নষ্ট হয়ে যাবে এবং তারপর ৫০% ৭৫% কেটে নেওয়া হবে... তাই শুধু শুধু একই কমেন্ট বারবার করবেন না... ধন্যবাদ...

সুপ্রিয় গল্পেরঝুরিয়ান... জিজেতে আজে বাজে কমেন্ট করা থেকে বিরত থাকুন ... অন্যথায় আপনার আইডি বা কমেন্ট ব্লক করা হবে... আর গল্প দেওয়ার ক্ষেত্রে গল্প দেওয়ার নিয়ম মেনে চলুন ... সার্বিকভাবে জিজের নীতিমালা মেনে চলার চেস্টা করুন ...

আনন্দ-বাজার।

"রূপকথা " বিভাগে গল্পটি দিয়েছেন গল্পের ঝুরিয়ান মেহেরাজ হাসনাইন (৩৬ পয়েন্ট)



হতাশার উত্তর-দক্ষিণ দিকে হাটতে হাটতে কোনো এক নতুন বাজারে এসে পড়েছি যেন..!! কেউ কিছু জন যেন বলছে আমাকে, " ভাইয়া , ভাইয়া !!! আনন্দ নিবেন.?? সের টাকা মাত্র। " আমি একটু হকচকিয়ে , বাম দিকে তাকালাম gj । দক্ষিণের বাতাস চুল গুলো সচল ঢেউ দিয়ে উড়িয়ে দিচ্ছে । অন্য ব্যক্তি আমাকে উদ্দেশ্য করে বলে। " ভাইয়া ক্লান্ত দেখাচ্ছে , চিন্তিত খুব..?? আপনি আমার কাছে আসুন , ন্যায্য মূল্যে কিনতে পেয়ে যাবেন।" আমি কথা না বলে হাটতে লাগলাম । মানুষ জনের ভিড় খুব । যেদিকে তাকায় সবাই ব্যস্ত নিজের আনন্দকে কিনে নিতে । এইতো অনুভূতির জগৎ ছাড়িয়ে এলাম মাত্র , এরি মাঝে এত ভিড়..?? আমি বুঝতেই আলোড়িত হলাম। ভাবছি হয়তো এদিকে আসাটাই ও উচিৎ হয়নি। কিন্তু মনের এক পাশ বলে উঠে , "সন্দেহ কি আসলেই এত প্রয়োজনীয়..!! হোক না অদ্ভুত, তবুও না হয় মানিয়ে নিতে শিখবো..!!" বাজার এর আয়তনও কিন্তু কম নয় । গলি থেকে রাস্তা সব কিছু দেখতে গাছের পাতায় ঢালে যেন । এর নাম নাকি আনন্দ বাজার ..!! খুব একটা অবাক হলেও এটি আমার চেনা প্রয়োজনীয় জায়গা বলে মনে হলো না । একটা জিনিস লক্ষ্য করলাম যা খুবই অদ্ভুত লাগলো আমার । বাজারে যে ক্রেতা সেই আবার বিক্রেতা । আবার যে বিক্রেতা সেই ক্রেতা। পরস্পর সম্পর্ক দেখে ঘনীভূত হলো আমার কৌতূহল । গিয়ে একজনকে প্রশ্ন করলাম , "আচ্ছা ভাইয়া বাজারে কি সবাই শুধু আনন্দের ব্যাপারি !!" হেসে জবাব পেলাম, "অদ্ভুত তো আপনি..?? জানেন না কিছুই !! এখন বেঁচে থাকতে হলেই আনন্দে থাকতে হয়। তাইতো এত ভিড় এখানে..!! বেঁচে থাকার ভিড় ....!!" নাহ আমি মানছি না সব । এই অল্পানন্দের জন্যই কি মানুষ বেঁচে থাকে..? নাকি এটিও আরেকটি অজুহাত। মন কিছুটা গাঢ় করে গেলাম পাশের দোকানে । প্রশ্ন শুনালাম তাকে, " আচ্ছা এ বাজারে কি কি পাওয়ায়..??" ও ভাবছে আমি কেন এই জিজ্ঞাসা করছি..!! এর পর কৌতূহল নিয়েই জবাব পেলাম , "এখানে তো আনন্দের সব কিছুই পাওয়া যায়.... অযথা হাসি , আনন্দনুভূতি , অভিনয় , সহানুভূতি , কল্পনা , বাস্তবতা সেই সাথে আরো কত মন ভুলানো উপকরণ !" হেহ , এসব এ কি আর আনন্দে থাকা বলে..? মিত্যে সব । পাশ দোকানে আরেকজন বলে , " নাহ ভাইয়া এভাবে বলবেন না , আসলে আপনি যার দোকানে গিয়েছেন তার কাছে ঐগুলোই ছিল । আবার অন্য কারো কাছে দেখবেন আনন্দের ব্যাখ্যা অন্য রকম। " আমার আসলে এ-সবেরই প্রয়োজন নেই , তাই চিন্তায় নিশ্চিন্তায় হাঁটছি , আর ভাবছি , এর থেকে বের হবো কিভাবে..!!! বাজারের শেষ রাস্তায় শেষ প্রান্তে কি পারবো পৌঁছাতে..?? আসলে আনন্দের মূল্য ব্যাখ্যা হয়তো এরা বুঝা না । দিতেই জানে না ।আর নাকি আমিই জানি না আনন্দ আসলে কি । তাইতো প্রশ্ন আসে তারা যদি না বুঝে থাকে তাহলে আমি বুঝতে যাব কেন..?? আর আমিই যদি না বুঝি..!! সে না হয় আমার রহস্য থাকুক !! কোনায় প্রায় শেষ প্রান্তের অজানা অংশের একটা দোকান , অতীতের কারো হবে.. পিচ্চি এক বসে আছে..। তাহলে এও কি আনন্দের অবিসারী ..?? নাকি অসহায়ের পরিস্থিতি তাকেও বাজারের একজন ব্যবসায়ী বানিয়ে দিল..?? এইযে পিচ্চি , তুমিও কি আনন্দ-বাজারে আনন্দ বেচা কেনা করতে এসেছো..?? পিচ্চি কন্ঠে জবাব, " নাহ ভাইয়া , আমি আসলে পথ হারিয়ে ফেলেছি । জানি না কার অতীত আমি , তবে সবাই যেহেতু এই বাজারেই ভিড় লাগিয়েছে তাই ভাবলাম আমার বর্তমানকেও এখানে খুঁজে পাবো ।" স্তব্দ হয়ে চেয়ে থাকলাম তার দিকে । সে তাহলে আনন্দের আগ্রহী না । হবেই বা কেন , সবাই কি আর আনন্দের অনুসারী হয় । আনন্দ নিজেই অন্যকে উপহাস করে প্রতিনিয়ত । আর এর পর ও কেউ তাকেই খুঁজে বেড়ায় । সে বিভ্রান্তে পরে সব এলোমেলো করে ফেলেবে যেন তার আনন্দকেই দরকার। কি অদ্ভুত পৃথিবী ..!!! পিচ্চিকে বললাম আমাকে বাজারের শেষ প্রান্তে নিয়ে চলো । আমি চিনি না এই বাজার , এখানে থাকতেও আগ্রহী না । পিচ্চি হেসে বললো, ভাইয়া আনন্দ-বাজার তো বৃত্তকার একটি ধাঁধা । যে বিন্দুতে যাত্রা শুরু করবেন তাতেই এসে থাকতে হবে । কারন আমরা সবাই আনন্দের অনুসন্ধানী । আপনি যদি আপনার আনন্দকেই বাদ দিয়ে দিতে চান , সেটকেও আনন্দের খুঁজ বলতে হবে । কিন্তু আপনি এখানে তো কখনোই পারবেন না উদ্দেশ্যহীন সিদ্ধান্ত নিতে.....


এডিট ডিলিট প্রিন্ট করুন  অভিযোগ করুন     

গল্পটি পড়েছেন ৫৬৭ জন


এ জাতীয় গল্প

গল্পটির রেটিং দিনঃ-

গল্পটির বিষয়ে মন্তব্য করুন

গল্পটির বিষয়ে মন্তব্য করতে আপনার একাউন্টে প্রবেশ করুন ... ধন্যবাদ...